ঢাকা | শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ৭ কার্তিক ১৪২৮

যৌন সম্পর্কে বাধ্য করতো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কর্মীরা

প্রকাশনার সময়: ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০০:২০
সংগৃহীত ছবি

ইবোলা সংকট চলাকালীন ২০১৮ সাল থেকে বিভিন্ন সময়ে কঙ্গো প্রজাতন্ত্রে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কর্মীরা বিপুল সংখ্যক নারী ও কিশোরীকে যৌন হয়রানি করেছিল। সংস্থাটির স্বাধীন তদন্ত কমিশনে বিষয়টি উঠে এসেছে।

মঙ্গলবার বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক টেডরস আধানম প্রতিবেদনকে ‘ভয়াবহ’ বলা উল্লেখ করেছেন। আর সংস্থার আফ্রিকা অঞ্চলের পরিচালক মাতশিদিসো মোয়েতি বলেছেন, তিনি ‘অপমানিত, ভীত এবং ভগ্নহৃদয়।’

স্বাধীন তদন্ত কমিশন ১৩ থেকে ৪৩ বছর বয়সী প্রায় ৮০ জন নারী ও কিশোরীর সঙ্গে কথা বলেছে। এই নিপীড়নের সঙ্গে জড়িত ২১ কর্মীকে চিহ্নিত করা হয়েছে। এদের মধ্যে স্থানীয় ও আন্তর্জাতিক কর্মী রয়েছেন।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এসব কর্মীদের বিরুদ্ধে ধর্ষণসহ নিপীড়নের গুরুতর অভিযোগ রয়েছে। ধর্ষণের শিকার নারীদের মধ্যে ২৯ জন নারী গর্ভবতী হয়েছেন। অভিযুক্ত কর্মীদের কেউ কেউ এসব নারীদের গর্ভপাতে বাধ্য করেছিলেন।

নয়া শতাব্দী/এমআর

নয়া শতাব্দী ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

এ সম্পর্কিত আরো খবর
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
বেটা ভার্সন