ঢাকা | বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ৫ কার্তিক ১৪২৮

সিলেটে ‘জলবায়ু ধর্মঘট’ কর্মসূচি পালন

প্রকাশনার সময়: ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২১:২৮

শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০টা। বিভিন্ন প্ল্যাকার্ড নিয়ে সিলেট নগরীর ক্বীন ব্রিজ এলাকায় দাঁড়িয়েছিল বিদ্যালয় পড়ুয়া কিছু শিক্ষার্থী। উদ্দেশ্য ‘জলবায়ু ধর্মঘট’।

বৈশ্বিক জলবায়ু আন্দোলন, ফ্রাইডেস ফর ফিউচারের আহ্বানে ‘গ্লোবাল ক্লাইমেট স্ট্রাইক’ এর সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে ইউথনেট-সিলেটের স্কুল পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা ঘণ্টাব্যাপী জলবায়ু ধর্মঘট পালন করেন।

এ সময় বিভিন্ন দাবি সম্বলিত প্লাকার্ড প্রদর্শন করে ‘জাস্টিস ফর ক্লাইমেট চেঞ্জ’ স্লোগান দেয় ধর্মঘটকারীরা।

তাদের এবারের ধর্মঘটের মূল বিষয় ছিলো ‘বৈষম্যমূলক নীতি ও অবদমন থেকে পৃথিবী এবং ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোর মানুষকে সুরক্ষিত করা।’

‘ফ্রাইডেস ফর ফিউচার বাংলাদেশ’ আন্দোলনের ব্যানারে ‘ইউথনেট ফর ক্লাইমেট জাস্টিস’, সিলেট ইউনিট ও ইসলামিক রিলিফ এর সদস্যদের মধ্যে অর্ধশত তরুণ-তরুণী এ কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে আসন্ন জলবায়ু সম্মেলন কপ-২৬ এ প্রতিশ্রুতির ফুলঝুড়ির পরিবর্তে বিশ্বনেতাদের জরুরি কার্যক্রম গ্রহণের আহ্বান জানান।

এ আসরে অনুষ্ঠিতব্য মিলান যুব সম্মেলন ও প্রিকপ সামনে রেখে বৈশ্বিক তাপমাত্রা বৃদ্ধির হার ১ দশমিক ৫ ডিগ্রিতে সীমিত রাখতে উন্নয়নশীল দেশগুলোকে চাপে রাখাসহ প্যারিস চুক্তি বাস্তবায়নের দাবি জানান তারা।

ইউথনেট ফর ক্লাইমেট জাস্টিস সিলেট ইউনিটের সমন্বয়ক দেলওয়ার হোসেন মান্নার সভাপতিত্বে কর্মসূচিতে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য দেন বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) সিলেট জেলার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল করিম কিম।

ঘণ্টাব্যাপী এ জলবায়ু ধর্মঘটে উপস্থিত ছিলেন, ইউথনেট ফর ক্লাইমেট জাস্টিস সিলেট ইউনিটের সহ-সমন্বয়ক নাজমুন নাহিদ, ইসলামিক রিলিফ বাংলাদেশ পক্ষে রাশেদ আহমদ, ইউথনেটের হুমায়রা জেবা, মাইশা নেওয়াজ, তামিম আহমেদ, সাজন আহমদ প্রমুখ।

উল্লেখ্য, সুইডিশ পার্লামেন্টের সামনে সুইডেনের স্কুলপড়ুয়া ছাত্রী গ্রেটা থানবার্গ একটি প্ল্যাকার্ড হাতে অবস্থান নেন। সেখানে লেখা ছিলো, ‘স্কুল স্ট্রাইক ফর ক্লাইমেট’। তার এ উদ্যোগের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে বিশ্বের নানা প্রান্তের স্কুল পড়ুয়ারা ধর্মঘট পালন করে।

নয়া শতাব্দী/এসডি/জেআই

নয়া শতাব্দী ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

এ সম্পর্কিত আরো খবর
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়
বেটা ভার্সন